সিলেটমঙ্গলবার , ৬ই ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
  1. অর্থনীতি
  2. আইন-আদালত
  3. আন্তর্জাতিক
  4. এক্সক্লুসিভ
  5. কৃষি ও প্রকৃতি
  6. ক্যাম্পাস
  7. খেলা
  8. গণমাধ্যম
  9. জবস
  10. জাতীয়
  11. জোকস
  12. টপ নিউজ
  13. তথ্যপ্রযুক্তি
  14. দেশে বাইরে
  15. ধর্ম

৪৪তম বিসিএস লিখিত পরীক্ষার প্রস্তুতি

পুর্বের আলো অনলাইন ডেস্ক
আপডেট : নভেম্বর ১১, ২০২২
Link Copied!

৪৪তম বিসিএস লিখিত পরীক্ষার প্রস্তুতি প্রতিটি প্রশ্নের উত্তর একটু ভিন্নভাবে উপস্থাপন করার ম্যাপ, ডাটা, কোটেশান ব্যবহার করে সাজিয়ে লিখবেন। চেষ্টা করবেন। যাতে সমস্ত লেখা সবার এক হলেও ম্যাপ আঁকার সময় অবশ্যই যতটুকু সম্ভব সঠিকভাবে আপনার খাতাটা কিছুটা ব্যতিক্রমী হয়।

আঁকতে হবে এই অংশে চেষ্টা করলেই ভালাে নম্বর  (পূর্ব প্রকাশিতের পর)প্রতিটি প্রশ্নের উত্তর কোটেশান বা ডাটা দিয়ে লেখার পাওয়া সম্ভব । আগামী ২৯ ডিসেম্বর ২০১২ থেকে ১১ জানুয়ারি’২০২৩ মাধ্যমে বৈচিত্র্য বজায় রাখার চেষ্টা করবেন।

 প্রবলেম সলভিং এর জন্য প্রচলিত ফরমেটগুলাে দেখে পর্যন্ত চলবে ৪৪-তম বিসিএস পরীক্ষার আবশ্যিক আন্তর্জাতিক বিষয়াবলীযাবেন।

ফরমেট থেকে আপনার অ্যানালাইসিস এর উপর বিষয়ের লিখিত পরীক্ষা। সরকারি কর্মকমিশন (পিএসসি) এখানে ১২টি প্রশ্ন থেকে ১০টি প্রশ্নের উত্তর দিতে হবে।

পরীক্ষক অধিক মনােযােগ দেবেন। তাই ফরমেট নিয়ে না এর এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানাে হয়েছে। এই ১০টি প্রশ্ন সবসময় সরাসরি কমন পড়ে না। ফাইজুল ভেবে ইস্যুগুলাের বেসিক কনসেপ্ট ক্লিয়ার করুন আগে।

২০২১ সালের ৩০ ডিসেম্বর থেকে শুরু করে ২০২২ সালের করীম আদর (৪০তম বিসিএস (পুলিশ)-সুপারিশপ্রাপ্ত , গাণিতিক যুক্তি ও মানসিক দক্ষতা। ২ মার্চ পর্যন্ত ছিল অনলাইনে আবেদনের সময়।

গত ২৭ মেধাক্রম- ০১) বলেন, “৪০তম বিসিএস এ একটি প্রশ্ন • গণিতে ৫০ এ ৫০ পাওয়ার জন্য নিজেকে তৈরি করতে মে প্রিলিমিনারি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। ১৫ হাজার ৭০৮ জন এসেছিল- জনকূটনীতি কি? পররাষ্ট্রনীতিতে জনকূটনীতির হবে। তার জন্য বিগত বছরের প্রশ্নগুলাে ভালাে করে প্রার্থী পাস করেন। নিয়ােগ বিজ্ঞপ্তিতে বলা ছিলাে ৪৪তম গুরুত্ব।

৪৪তম বিসিএস লিখিত পরীক্ষার প্রস্তুতি

এই প্রশ্নটা প্রশ্নকর্তা নিজেও বানান নি, বা কোনাে বিশ্লেষণ করুন, কোন কোন চ্যাপ্টার থেকে অংক আসতে বিসিএসে বিভিন্ন ক্যাডারে ১ হাজার ৭১০ জন কর্মকর্তা বই থেকেও দেননি। প্রশ্নটা করা হয়েছিল বাংলাদেশের পারে তা ঠিক করুন, সেভাবে চর্চা করুন।

বেশিরভাগ পরীক্ষার্থীর সমস্যা হয় বিন্যাস, সমাবেশ, স্থানাঙ্ক জ্যামিতি ও সম্ভাব্যতায়। তাই এই অধ্যায়গুলাের বেসিক ভালাে করে জানুন। অংক করার সময় নিয়ম শিখবেন, চেষ্টা করবেন সবগুলাে নিয়মের অংক চর্চা করতে। তাহলেই প্রশ্ন কমন পড়বে। • সূচক-লগারিদম, ভেনচিত্র, ত্রিকোণমিতি, সেট, সমান্তর ও গুনােত্তর ধারা, নির্ণায়ক, লাভ-ক্ষতি, শতকরা- এসব অধ্যায় থেকেই সাধারণত বেশি প্রশ্ন আসে।

পাটিগণিত ও বীজগণিতের উপর জোর দিতে হবে। • মানসিক দক্ষতার জন্য বাজারে প্রচলিত যে কোনাে বই থেকে প্রস্তুতি নিন। এছাড়াও বিভিন্ন ওয়েবসাইটের সহায়তা নিতে পারেন।

বিজ্ঞান • ১.৫ নম্বরের প্রশ্নেও তিনটি ভাগ থাকে। তাই সবার আগে নিশ্চিত করুন প্রশ্নের উত্তর করার সময় আপনি। সময় বজায় রেখেছেন কিনা? • সাধারণ বিজ্ঞান অংশে বর্তমানে বেসিক থেকে প্রশ্ন করা হয়। ২-৩ লাইনেই অনেক প্রশ্নের উত্তর হয়ে যায়। তাই খেয়াল করবেন অপ্রাসঙ্গিক বা অবান্তর কোনাে কিছু যেন লেখা না হয়।

জনকণ্ঠের ‘শিক্ষাসাগর পাতায় নিয়মিতভাবে । ‘প্রতিযােগিতামূলক পরীক্ষার প্রস্তুতি নামে একটি প্রশ্নোত্তর পর্ব প্রকাশিত হচ্ছে। যা আপনার সব। ধরনের চাকরির পরীক্ষায় সফলতা আনতে

ভূমিকা রাখবে আশা করি।

০ আলাে, শব্দ, এসিড-ক্ষার, পানি, পলিমার, খাদ্য ও পুষ্টি, বায়ােটেকনােলজি, রােগ ও স্বাস্থ্য পরিচর্যা- এই অধ্যায়গুলাে থেকে বেশি প্রশ্ন আসে। তাই নবম-দশম । শ্রেণির পদার্থ, রসায়ন ও সাধারণ বিজ্ঞান বই থেকে

প্রতিটি অধ্যায়ের মূল বিষয়টা সম্পর্কে জেনে নিন। নেয়া হবে। লিখিত পরীক্ষার বিস্তারিত তথ্য পরে পররাষ্ট্রনীতির আলােকে। ২০১৯ সালে রােহিঙ্গা প্রত্যাবর্তন • আমাদের সম্পদ, বায়ুমণ্ডল অধ্যায় দুটি অনেকেই গুরুত্ব কমিশনের ওয়েবসাইট হতে জানা যাবে।

ইস্যতে জনকুটনীতি কথাটা খুব আলােচিত হয়েছিল। ড. দেয় না। এখান থেকেও প্রশ্ন আসতে পারে। তাই কোনাে বাংলাদেশ বিষয়াবলী

মােমেন দায়িত্ব নেওয়ার পর বলেছিলেন তিনি অর্থনৈতিক অধ্যায় বাদ দিয়ে প্রস্তুতি নেবেন না। • অধিকাংশ পরীক্ষার্থী বাংলাদেশ বিষয়াবলীতে ভালাে।  কূটনীতিক ও জনকূটনীতির উপর জোর দিবেন। তাহলে অনেক সময় কয়েকটি প্রশ্ন মিলিয়ে একটি প্রশ্ন করা

এই টার্মটা কি আউট অফ দা বক্স? কোনােভাবেই না। হয়, যেগুলাে বিভিন্ন অধ্যায় থেকে মিলিয়ে করে। তাই মূল কারণ খাতায় ঠিকভাবে উত্তর উপস্থাপন করতে না ২০২০ এর জানুয়ারিতে ৪০তম বিসিএস লিখিত পরীক্ষার সব অধ্যায় পড়তে হবে। পারা।

প্রশ্নে তাই এটা সঙ্গত কারণেই ছিল। তাই কনসেপচুয়াল • কম্পিউটারের জন্য উচ্চ মাধ্যমিকের আইসিটি বইটি • মনে রাখবেন এই বিষয়ে কম বেশি সবাই লিখতে । ইস্যু নিয়ে বেশি চিন্তার কিছু নাই। বাংলাদেশ ও পড়ার চেষ্টা করবেন। পারবে কিন্তু পার্থক্য তৈরি হবে উপস্থাপনায়, প্রাসঙ্গিক আন্তর্জাতিক চলমান ইস্যুগুলাে নিয়ে একটু নাড়াচাড়া • কম্পিউটার ও ইলেকট্রনিকসের অংশটি খাতায় নােট ডাটা/চার্ট কোটেশান ইত্যাদি ব্যবহারে।

করলেই পরীক্ষার্থীরা প্রশ্নের উত্তর করে আসতে পারবে।’ করে পড়বেন। যে কোনাে প্রচলিত গাইড বইও ফলাে • ৫/১০/১৫ নম্বরের প্রতিটি প্রশ্নের জন্য আপনি কত • ১২টা প্রশ্নের মধ্যে ১/২টা একদম আনকমন আসবে। করতে পারেন। মিনিট লিখবেন এটা আগে থেকেই ঠিক করে যাবেন।

ওই দুইটা বাদ দিয়েই ১০টা প্রশ্নের উত্তর করতে হবে। ৫- • বিজ্ঞানে যাদের দুর্বলতা আছে তারা পরীক্ষার আগে তাই পড়া শেষে সময় ধরে লিখার অভ্যাস করুন। ৬টা প্রশ্ন এমনিতেই কমন পড়বে। বাকিগুলাে আপনার বারবার বিজ্ঞান রিভিশন দেবেন। নােট করে পড়ার চেষ্টা অনেকেই প্রথম দিকের প্রশ্নগুলাে বড় করে লিখতে গিয়ে ধারণাবিশ্লেষণ করেই লিখতে হবে।

করবেন, তাহলে পরীক্ষার আগে রিভিশান দিতে সুবিধা শেষের দিকে ১০-২০ নম্বর ছেড়ে দিয়ে আসেন। এই গ্যাপ • ইম্পিরিকাল ইস্যুর প্রশ্নগুলাের উত্তর করার সময় হবে। কোনােভাবেই পূরণ সম্ভব না। কনফ্লিক্ট এর প্রেক্ষাপট থেকে শুরু করে সলিউশন পর্যন্ত ।

  • এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।